• বৃহস্পতিবার, ২১ অক্টোবর ২০২১, ০৯:০৩ পূর্বাহ্ন
ব্রেকিং নিউজ
এড. আমজাদ হোসেন কখনও অর্থবিত্তের জন্য রাজনীতি করেননি-এড.ফরিদুল ইসলাম এড.আমজাদ হোসেনের ২য় মৃত্যুবার্ষিকী সফলের লক্ষ্যে প্রস্তুতি সভা সম্পন্ন পূর্ব বড় ভেওলা মাহমুদিয়া হেফজখানা ও এতিমখানায় সাহায্যের আবেদন চকরিয়ায় দখলবাজরা কেটে নিল সামাজিক বনায়নের শতাধিক গাছ মানবিক সাহায্যের আবেদন জাফর আলম এমপি ও জাহেদুল ইসলাম লিটু কে বিশাল সংবর্ধনা আধুনিক ও বাসযোগ্য চকরিয়া পৌরসভা রূপান্তরে কাজ করবো-মেয়র প্রার্থী এড. ফয়সাল চকরিয়ায় ছাত্রলীগ সভাপতিকে নির্যাতনের প্রতিবাদে মানববন্ধন ও বিক্ষোভ সমাবেশ চকরিয়া বিএমচর ইউপি কার্যালয়ে হামলা ও ভাংচুর, চেয়ারম্যানসহ আহত ৪ চকরিয়া কোনাখালীতে পৈতৃক ভিটা জবর দখলে নিতে সন্ত্রাসী হামলা

চকরিয়ায় প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে বালু উত্তোলন অব্যাহত, ভাঙ্গছে সড়ক ও বসতী

চকরিয়া প্রতিনিধি / ১৬৩ সময় দেখুন
আপডেট : রবিবার, ১ নভেম্বর, ২০২০

চকরিয়ায় প্রশাসনের নিষেধাজ্ঞা উপেক্ষা করে বালু উত্তোলন অব্যাহত রেখেছে কতিপয় চিহ্নিত বালুদস্যুরা।ফলে ভাঙ্গনের মুখে পড়েছে সড়ক, কবরস্থান, মসজিদ-মাদরাসা ও বসতববাড়ি। এনিয়ে স্থানীয়রা প্রশাসনের বিভিন্ন দপ্তরে লিখিত অভিযোগ করেছেন। উপজেলার ডুলাহাজারা ইউনিয়নের ৭নং ওয়ার্ডের মগছড়ারজোম মালুমঘাট পুলিশ ফাঁড়ির পূর্বপাশ এলাকায় চলছে বালুদস্যুদের এ তান্ডব।
লিখিত অভিযোগ ও স্থানীয় সূত্রে প্রাপ্ত তথ্যে জানাগেছে, উপজেলার ডুলাহাজারা মগছড়ারজোম ডুলারছড়া খাল থেকে স্থানীয় জনৈক মোহাম্মদ মিয়ার পুত্র গিয়াস উদ্দিনের নেতৃত্বে একদল বালুদস্যু প্রশাসন ও স্থানীয়দের বাধা নিষেধ উপেক্ষা করে অবৈধভাবে লবণাক্ত বালু উত্তোলন অব্যাহত রেখেছে। এসব বালু বিভিন্ন ঢালাই, বহুতল ভবন ও নির্মাণকাজে সাপ্লাই এবং বিক্রয় করা হচ্ছে। ফলে নির্মাণকাজের ভবিষ্যত নিয়ে চরম হুমকি রয়েছে। অপরদিকে মগছড়ারজোম- ডুলারছড়া খাল থেকে অবৈধ বালু উত্তোলন ও পরিবহনের ফলে বহুল যাতায়াতের মগছড়ারজোম সড়ক ভেঙ্গে তছনছ হয়ে যাচ্ছে, নদীতে বিলীন হচ্ছে অসংখ্য বসতি,কবরস্থান ও মসজিদ-মাদরাসা। এছাড়াও ফাঁসিয়াখালী রেঞ্জের আওতাধীন রিজার্ভ বনভূমি ভেঙ্গে ছড়াখালে বিলীন হয়ে পড়ছে। এসব রক্ষা ও বালু উত্তোলন বন্ধ ও প্রয়োজনীয় আইনগত পদক্ষেপ গ্রহণ করতে স্থানীয় জনসাধারণের পক্ষ থেকে চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী অফিসার, উপজেলা সহকারি কমিশনার(ভূমি) এবং ববনবিভাগের কক্সবাজার উত্তর বিভাগীয় বনসংরক্ষক বরাবরে লিখিত অভিযোগ দিয়েছেন। কিন্তু বালুদস্যুরা এসব কিছু তোয়াক্ষা না করে দিব্যি বালু উত্তোলন অব্যাহত রেখেছে। স্থানীয়রা সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের কাছে জরুরী ভিত্তিতে ব্যবস্থা নেওয়ার জন্য আহবান জানিয়েছেন।
চকরিয়া উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা সৈয়দ শামসুল তাবরীজ বলেন, ছড়াখাল থেকে বালু উত্তোলনকারীদের বিরুদ্ধে একটি অভিযোগ দিয়েছেন। অভিযোগ কেন, কেউ কোন অবস্থাতে অবৈধভাবে বালু উত্তোলন করতে পারবেন। যতবড় শক্তিধর ব্যক্তিই হোকনা কেন অচিরেই অভিযান পরিচালনা করা হবে। তিনি আরো বলেন, ইতিমধ্যে চকরিয়ার নদী ও ছড়াখালের বিভিন্ন পয়েন্টে ভ্রাম্যমান আদালতের অভিযান চালিয়ে প্রায় ৭০/৮০টি ড্রেজার ও সেলু মিশিন জব্দ,ধংস ও অর্থদন্ড আদায় করা হয়েছে। ধারাবাহিক এ অভিযান অব্যাহত রাখতে কক্সবাজার জেলা প্রশাসনের নির্দেশে অবৈধ বালু উত্তোলনের বিরুদ্ধে জিরো টলারেন্স ঘোষনা করা হয়েছে।##


আপনার মতামত লিখুন :

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

More News Of This Category